চুয়েট ভর্তি বিজ্ঞপ্তি 2020-21, চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

2020-21 শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের জন্য চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। বাংলাদেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর মধ্যে একটি হল চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। চুয়েটের মোট ডিপারমেন্ট 15 টি। এই বিশ্ববিদ্যালয়টি 1958 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এটি চট্টগ্রাম ক্যাপিটাল রোড চট্টগ্রাম, বাংলাদেশে অবস্থিত । এই বিশ্ববিদ্যালয়টি ক্যাম্পাস এরিয়া 171 একর । সুতরাং, বিজ্ঞপ্তিটি চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে। যেসব শিক্ষার্থীরা চুয়েট ভর্তির জন্য আগ্রহী সে সকল শিক্ষার্থীদের জন্য এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিজ্ঞপ্তি। অতএব, চুয়েটবিষয়ে যাবতীয় তথ্য সম্পর্কে আলোচনা করা হলো:

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ( চুয়েট):

ডিপার্টমেন্ট অনুযায়ী আসন সংখ্যা 2020-21
1. বিদ্যুতিক এন্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং। আসনসংখ্যা 180 টি।
2. মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 180 টি।
3. সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 130 টি।
4. কম্পিউটার সাইন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং। সর্বমোট আসন সংখ্যা 130 টি।
5. আর্কিটেকচার ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 30 টি।
6. ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 60টি।
7. বায়ো মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 30 টি।
8. ম্যাটেরিয়াল সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং। সর্বমোট আসন সংখ্যা 30 টি।
9. মেকানিক্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং। সর্বমোট আসন সংখ্যা 30 টি।
10. পেট্রোলিয়াম এন্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 30 টি।
11. আরবার এন্ড রিজিওনাল ইঞ্জিনিয়ারিং। আসন সংখ্যা 30 টি।
12. ওয়েটার রিসোর্সেস ইঞ্জিনিয়ারিং। সর্বমোট আসন সংখ্যা 30 টি।
সুতরাং, চট্টগ্রাম প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে সর্বমোট আসন সংখ্যা 890 টি।

ইঞ্জিনিয়ারিং বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর আসন সংখ্যা 2020-21:

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) সর্বমোট সিট 1060টি।
চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। (চুয়েট)
সর্বমোট আসন সংখ্যা 890টি।
ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়।( ডুয়েট) সর্বমোট আসন সংখ্যা 686টি।
খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। (কুয়েট)
আসন সংখ্যা 1065 টি।
রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। (রুয়েট)। সর্বমোট আসন সংখ্যা 1235টি।

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের গুরুত্বপূর্ণ সময়সূচী:

আবেদন শুরুর তারিখ:
আবেদনের শেষ তারিখ:
আবেদন ফি:

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির যোগ্যতা:

2018 সালে এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের কমপক্ষে ন্যূনতম জিপিএ 4.00 পেয়ে পাস করতে হবে। এরপর শিক্ষার্থীকে 2020 সালের এইচএসসি পরীক্ষায় গণিত ,পদার্থবিজ্ঞান ,রসায়ন এবং ইংরেজি এই চারটি বিষয়ে মোট জিপিএ 17.5 পেতে হবে। এবং উল্লেখিত বিশেষ সমূয়ের মধ্যে গণিত ,পদার্থবিজ্ঞান ,রসায়ন পৃথক ভাবে থাকতে হবে। প্রত্যেকটি বিষয়ে কমপক্ষে A পেয়ে উত্তীর্ণ হতে হবে। এবং ইংরেজিতে কমপক্ষেA-পেয়ে পাশ করতে হবে।

চুয়েট ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন:

সর্বমোট 2 ঘন্টা 30 মিনিট ধরে মোট 500 নম্বরের বহুনিবাচনি পদ্ধতিতে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এতে গণিত 150, পদার্থবিজ্ঞান 150, রসায়ন 150, এবং ইংরেজীতে 50 নম্বর থাকবে। এরপর, প্রত্যেকটি বিষয়ে 25 টি প্রশ্ন থাকবে। এবং 25 টি প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে প্রতিটি শিক্ষার্থীকে।

Kamrul Islam

কামরুল ইসলাম শিক্ষা বিষয়ক নিউজ এবং আর্টিকেল লিখে আসছে প্রায় ৫ বছর থেকে। দীর্ঘসময়ের অভিজ্ঞতা থেকে সৃজনশীল লেখার জন্য সহয়ে দর্শকদের মধ্যে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে সক্ষম হন। এই ওয়েবসাইটে তার অনেকগুলো লেখা প্রকাশিত হয়েছে যার মধ্যে এটি একটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *